বার্ধক্য - অর্চনা আচার্যচৌধুরী


যখন যৌবন ছিল সহর্ষে জাগতুম ভোরবেলা।
আবার দিনের শেষে শিশিরের দুঃখভাগ নিতুম সহজে ;
এখন সকালে উঠি শুধু শাদা ঝর্ণাটিকে গালাগাল দিতে
যদিও সতেজ রাখে সমস্ত গাছের মূল; আহা যদি দুচোখের পাতা
নির্বোধ খড়খড়ি হত, আর তাকে চেপে
বন্ধ করে রাখা যেত পর্দা দিয়ে ঢেকে চিরকাল।

অজৈব এ-পৃথিবীর অন্তহীন ভার; কী আশ্চর্য সন্ধ্যাবেলা
লম্বা লম্বা ছায়াগুলি শুয়ে আছে কাটা বিকীর্ণ খড়ের মতো
উন্মাদ বৃদ্ধা ও আমি আনন্দে চঞ্চল হয়ে উঠি; পরমাত্মা গেয়ে ওঠে জয়গান;
হিমবর্ষী আকাশ ছড়ানো থাকে চারদিকে; মাঝখানে
জ্বলছে সে জীবন্ত উত্তাপে ।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ

বৈশিষ্ট্যপূর্ণ পোস্ট গুলি

[getBlock results="5" label="random" type="block1"]
close