Mirabai kobita Abul Hassan : মীরাবাঈ – আবুল হাসান

+ প্রিয়জনের কাছে শেয়ার করুন +

ভজন গায় না, তবু কথা তার ত্রিকালের তাপিত ভজন,
যখােন জীবন কাঁটা রাখে তার পথে পথে।
সে তখােন পায়ের তলায় বিদ্ধ ব্যথা নিয়ে নতুন নিয়মে পুষ্পিত।

ভুল বােঝে লােকে, ভাবে গরবিনী অথবা অস্থির অভিমানীঃ
কিন্তু আমি জানি তার হাতের উপর কেন উড়ে আসে
আহত পাখির দল-মানুষ, মলিন চাষা, চীৎকৃত প্রসূন।

ভিতরে বিশাল এক মমতাক্ষমতা, জানে যুঁইফুল মাটির তলায়
কিসের আবেগে বাড়ে-কতটুকু সান্ত্বনায় শিকড়প্রবাহে জাগে
পৃথিবীতে আজো সব ভালােবাসা, স্নেহ, প্রেম, শুভতা, শুভ্রতা।

নিজেই আহত; তবু লােকে ভাবে রয়েছে লুকোনাে তার মুঠোর ভিতর
কালকেউটের ঝাপি, লোহার করাত, ছুরি, ঘাতকের বিষ!

সে তার সুন্দরে পােড়ে আর ওরা ভাবে দেখাে জ্বালালে আগুন!

সে চায় সংসার, যাতে সুন্দরের বিন্দু বিন্দু বােধের চরকায়
সুতাে কেটে দিন যাবে কিন্তু ওরা তার পাহারায়
অদৃশ্যে এখনাে আজো তুলে রাখে বস্ত্রপাত, লােকনিন্দা, লােলুপ ধিক্কার।

কেউ বােঝে না, তবু আছে আরাে আকাঙিক্ষত সুস্নিগ্ধ জগৎ;
যখােন মানুষ তাকে দুঃখ দেয়,
দলবেঁধে যখােন ঠোকারায় তাকে নষ্ট কিছু পাখি,
তখােন ঘাসের দিকে তাকাও—দেখবে ঘাস নতমুখ, অধোবদনের
কিছু ভাষাস্নেহ লেগে আছে তৃষ্ণার্ত তরুর ঠোঁটে
ভােরবেলা শিশিরের মতাে।

+ প্রিয়জনের কাছে শেয়ার করুন +

Leave a Reply

Your email address will not be published.

কবিকল্পলতা অনলাইন প্রকাশনীতে কবিতা ও আবৃত্তি প্রকাশের জন্য আজ‌ই যুক্ত হন