Abhishap kobita lyrics Kazi Nazrul Islam অভিশাপ কবিতা কাজী নজরুল ইসলাম

+ প্রিয়জনের কাছে শেয়ার করুন +

Abhishap kobita lyrics Kazi Nazrul Islam অভিশাপ কবিতা কাজী নজরুল ইসলাম

 

Bengali Poem, Abhishap kobita lyrics written by Kazi Nazrul Islam‌ বাংলা কবিতা, অভিশাপ লিখেছেন কাজী নজরুল ইসলাম

 

যেদিন আমি হারিয়ে যাবো, বুঝবে সেদিন বুঝবে,

অস্তপারের সন্ধ্যাতারায় আমার খবর পুছবে—

বুঝবে সেইদিন বুঝবে!

ছবি আমার বুকে বেঁধে

পাগল হ’লে কেঁদে-কেঁদে

ফিরবে মরু কানন গিরি,

সাগর আকাশ বাতাস চিরি’

যেদিন আমায় খুঁজবে—

বুঝবে সেদিন বুঝবে!

 

স্বপন ভেঙে নিশুত্‌ রাতে জাগবে হঠাৎ চমকে,

কাহার যেন চেনা-ছোঁওয়ায় উঠবে ও-বুকে ছমকে,—

জাগবে হঠাৎ চমকে!

ভাববে বুঝি আমিই এসে

ব’সনু বুকের কোলটি ঘেঁষে,

ধরতে গিয়ে দেখবে যখন

শূন্য শয্যা! মিথ্যা স্বপন!

বেদ্‌নাতে চোখ বুঁজবে—

বুঝবে সেদিন বুজবে।

 

গাইতে ব’সে কন্ঠ ছিঁড়ে আস্‌বে যখন কান্না,

ব’লবে সবাই—“সেই য পথিক তার শেখানো গান না?’’

আস্‌বে ভেঙে কান্না!

প’ড়বে মনে আমার সোহাগ,

কন্ঠে তোমার কাঁদবে বেহাগ!

প’ড়বে মনে অনেক ফাঁকি

অশ্র”-হারা কঠিন আঁখি

ঘন-ঘন মুছবে—

বুঝ্‌বে সেদিন বুঝবে!

 

আবার যেদিন শিউলি ফুটে ভ’রবে তোমার অঙ্গন,

তুলতে সে ফুল গাঁথতে মালা কাঁপবে তোমার কঙ্কণ—

কাঁদবে কুটীর-অঙ্গন!

শিউলি ঢাকা মোর সমাধি

প’ড়বে মনে, উঠবে কাঁদি’!

বুকের মালা ক’রবে জ্বালা

চোখের জলে সেদিন বালা

মুখের হাসি ঘুচবে—

বুঝবে সেদিন বুঝবে!

 

আসবে আবার আশিন-হাওয়া, শিশির-ছেঁচা রাত্রি,

থাকবে সবাই— থাকবে না এই মরণ-পথের যাত্রী!

আসবে শিশির-রাত্রি!

থাকবে পাশে বন্ধু স্বজন,

থাকবে রাতে বাহুর বাঁধন,

বঁধুর বুকের পরশনে

আমার পরশ আনবে মনে—

বিষিয়ে ও-বুক উঠবে—

বুঝবে সেদিন বুঝবে!

 

আসবে আবার শীতের রাতি, আসবে না ক আ সে—

তোমার সুখে প’ড়ত বাধা থাকলে যে-জন পার্শ্বে,

আসবে না ক’ আর সে!

প’ড়বে মনে, মোর বাহুতে

মাথা থুয়ে যে-দিন শুতে,

মুখ ফিরিয়ে থাকতে ঘৃণায়!

সেই স্মৃতি নিতো ঐ বিছানায়

কাঁটা হ’য়ে ফুটবে—

বুঝবে সেদিন বুঝবে!

 

আবার গাঙে আসবে জোয়ার, দুলবে তরী রঙ্গে,

সেই তরীতে হয়ত কেহ থাকবে তোমার সঙ্গে—

দুলবে তরী রঙ্গে,

প’ড়বে মনে সে কোন্‌ রাতে

এক তরীতে ছিলে সাথে,

এমনি গাঙ ছিল জোয়ার,

নদীর দু’ধার এমনি আঁধার

তেম্‌নি তরী ছুটবে—

বুঝবে সেদিন বুঝবে!

 

তোমার সখার আসবে যেদিন এমনি কারা-বন্ধ,

আমার মতন কেঁদে-কেঁদে হয়ত হবে অন্ধ—

সখার কারা-বন্ধ!

বন্ধু তোমার হান্‌বে হেলা

ভাঙবে তোমার সুখের মেলা;

দীর্ঘ বেলা কাটবে না আর,

বইতে প্রাণের শান্ত— এ ভার

মরণ-সনে যুঝ্‌বে—

বুঝবে সেদিন বুঝ্‌বে!

 

ফুট্‌বে আবার দোলন চাঁপা চৈতী-রাতের চাঁদনী,

আকাশ-ছাওয়া তারায়-তারায় বাজবে আমার কাঁদ্‌নী—

চৈতী-রাতের চাঁদ্‌নী।

ঋতুর পরে ফির্‌বে ঋতু,

সেদিন-হে মোর সোহাগ-ভীতু!

চাইবে কেঁদে নীল নভো গা’য়,

আমার মতন চোখ ভ’রে চায়

যে-তারা তা’য় খুঁজবে—

বুঝ্‌বে সেদিন বুঝ্‌বে!

 

আস্‌বে ঝড়, নাচবে তুফান, টুটবে সকল বন্ধন,

কাঁপবে কুটীর সেদিন ত্রাসে, জাগবে বুকে ক্রন্দন—

টুটবে যবে বন্ধন!

পড়বে মনে, নেই সে সাথে

বাঁধতে বুকে দুঃখ-রাতে—

আপনি গালে যাচবে চুমা,

চাইবে আদর, মাগ্‌বে ছোঁওয়া,

আপনি যেচে চুমবে—

বুঝবে সেদিন বুঝবে।

 

আমার বুকের যে কাঁটা-ঘা তোমায় ব্যথা হান্‌ত,

সেই আঘাতই যাচবে আবার হয়ত হ’য়ে শ্রান্ত—

আসবো তখন পান্ত’।

হয়ত তখন আমার কোলে

সোহাগ-লোভে প’ড়বে ঢ’লে,

আপনি সেদিন সেধে কেঁদে

চাপ্‌বে বুকে বাহু বেঁধে,

চরণ চুমে পূজবে—

বুঝবে সেদিন বুঝবে!

 

পছন্দসই পোস্ট গুলি দেখুন
 
+ প্রিয়জনের কাছে শেয়ার করুন +

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

কবিকল্পলতা অনলাইন প্রকাশনীতে কবিতা ও আবৃত্তি প্রকাশের জন্য আজ‌ই যুক্ত হন। (কবিকল্পলতায় প্রকাশিত আবৃত্তি ইউটিউব ভিউজ ও সাবস্ক্রাইবার বাড়াতে সহায়তা করে)