Hat kobita Jatindranath Sengupta হাট কবিতা – যতীন্দ্রনাথ সেনগুপ্ত

+ প্রিয়জনের কাছে শেয়ার করুন +

Hat kobita Jatindranath Sengupta হাট কবিতা - যতীন্দ্রনাথ সেনগুপ্ত

 

Bangla Kobita, Hat written by Jatindranath Sengupta [বাংলা কবিতা, হাট লিখেছেন যতীন্দ্রনাথ সেনগুপ্ত]

 

দূরে দূরে গ্রাম দশ-বারোখানি, মাঝে একখানি হাট,

সন্ধ্যায় সেথা জ্বলেনা প্রদীপ, প্রভাতে পড়ে না ঝাঁট।

বেচা কেনা সেরে বিকেল বেলায়

যে যাহা সবে ঘরে ফিরে যায়;

বকের পাখায় আলোক লুকায় ছাড়িয়া পুবের মাঠ;

দূরে দূরে গ্রামে জ্বলে ওঠে দীপ-আঁধারেতে থাকে হাট।

 

নিশা নামে দূরে শ্রেণীহারা এক ক্লান্ত বকের পাখে;

মদীর বাতাস ছাড়ে প্রশ্বাস পার্শ্বে পাকুড়-শাখে।

হাটের দোচালা মুদিল নয়ান,

কারো তরে তার নাহি আহ্বান,

বাজে বায়ু আসি বিদ্রুপ-বাঁশি জীর্ণ বাঁশের ফাঁকে;

নির্জন হাটে রাত্রি নামিল একক কাকের ডাকে।

 

দিবসেতে সেথা কত কোলাহল চেনা-অচেনার ভীড়ে ;

কত না ছিন্ন চরণচিহ্ন ছড়ানো সে ঠাঁই ঘিরে।

মাল চেনাচিনি, দর জানাজানি,

কানাকড়ি নিয়ে কত টানাটানি;

হানাহানি ক’রে কেউ নিল ভ’রে, কেউ গেল খালি ফিরে।

দিবসে থাকে না কথার অন্ত চেনা-অচেনার ভিড়ে।

 

কত সে আসিল, কত বা আসিছে, কত না আসিবে হেথা ;

ওপারের লোক নামালে পসরা ছুটে এপারের ক্রেতা।

শিশির-বিমল প্রভাতের ফল,

শত হাতে সহি’ পরখের ফল-

বিকাল বেলায় বিকায় হেলায় সহিয়া নীরব ব্যথা।

হিসাব নাহি রে-এল আর গেল কত ক্রেতা-বিক্রেতা।

 

নূতন করিয়া বসা আর ভাঙা পুরানো হাটের মেলা;

দিবসরাত্রি নূতন যাত্রী, নিত্য নাটের খেলা

খোলা আছে হাট মুক্ত বাতাসে

বাধা নাই ওগো-যে যায় যে আসে,

কেহ কাঁদে, কেহ গাঁটে কড়ি বাঁধে ঘরে ফিরিবার বেলা।

উদার আকাশে মুক্ত বাতাসে চিরকাল একই খেলা॥

 

 

+ প্রিয়জনের কাছে শেয়ার করুন +

Leave a Reply

Your email address will not be published.

কবিকল্পলতা অনলাইন প্রকাশনীতে কবিতা ও আবৃত্তি প্রকাশের জন্য আজ‌ই যুক্ত হন